ওমিক্রন আতঙ্কে ভারতে নয়াদিল্লিতে কারফিউ জারি

ওমিক্রন আতঙ্কে ভারতে নয়াদিল্লিতে কারফিউ জারি

ভারতে করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন আক্রান্তদের সংখ্যা বেড়ে চলায় দেশটির রাজধানী নয়াদিল্লিতে কারফিউ জারির ঘোষণা দিয়েছে রাজ্য সরকার। সোমবার (২৭ ডিসেম্বর) থেকে নতুন বিধিনিষেধ কার্যকর হয়েছে।

ভারতে প্রতিদিনই বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। নয়াদিল্লিতে একদিনেই ২৯০ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে কারফিউ জারির ঘোষণা দিয়েছে রাজ্য সরকার। রাত ১১টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত কারফিউ জারি থাকবে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

এর আগে সংক্রমণ বাড়তে থাকায় কর্ণাটক রাজ্যে দশদিনের কারফিউ জারি করা হয়। পরিস্থিতি আরও খারাপ হতে থাকলে সিনেমা হল, স্টেডিয়াম, জিমনেসিয়ামসহ বেশ কিছু প্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখা হবে। আপাতত দিল্লিতে রেস্তোরাঁ, বার, অডিটোরিয়ামে ৫০ শতাংশ এবং বিয়ের অনুষ্ঠানে ২০০ জনের উপস্থিতির নিয়ম কার্যকর রয়েছে।

তবে আক্রান্তের সংখ্যা বেশি হলেও কোনো ধরনের জটিলতা ছাড়াই দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠছেন ওমিক্রনে আক্রান্ত রোগীরা। এ বিষয়ে ভারতীয় চিকিৎসক সুরেশ কুমার ভারতের স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে বলেছেন, ওমিক্রন আক্রান্ত ৯০ শতাংশ রোগীর তেমন কোনো গুরুতর লক্ষণ নেই। ওষুধ ও ঘরোয়া চিকিৎসায় সুস্থ হয়ে ওঠা সম্ভব। আর কিছু রোগীদের মধ্যে লক্ষণ বলতে সামান্য জ্বর, গলা ও শরীর ব্যথা, ডায়রিয়া দেখা দিচ্ছে। এর বাইরে রোগীদের অক্সিজেন সরবরাহ ও রেমডিসিভির প্রয়োজন হচ্ছে না।