ওড়না মাথায় শরণার্থীদের সাথে সাক্ষাত অ্যাঞ্জেলিনা জোলির

শরণার্থীদের সাথে কথা বলছেন অ্যাঞ্জেলিনা জোলি - ছবি : ইউএনএইচসিআর/ টুইটার

ওড়না মাথায় শরণার্থীদের সাথে সাক্ষাত অ্যাঞ্জেলিনা জোলির

অস্কার বিজয়ী মার্কিন চলচ্চিত্র অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জোলি পশ্চিম আফ্রিকার বুরকিনা ফাসোতে আশ্রয় নেয়া প্রতিবেশী মালি থেকে পালিয়ে আসা হাজার শরণার্থীদের এক শিবির পরিদর্শন করেছেন। রোববার দেশটির উত্তর-পূর্ব সীমান্ত সংলগ্ন গুদেবু শরণার্থী শিবির সফর করেন তিনি।

জাতিসঙ্ঘের শরণার্থী সংস্থা ইউএনএইচসিআরের শুভেচ্ছা দূত হিসেবে অ্যাঞ্জেলিনা জোলি এই সফর করেন। শরণার্থী শিবির পরিদর্শনে এসে ওড়না মাথায় শরণার্থীদের সাথে সাক্ষাত করেন তিনি।

বুরকিনা ফাসোর পররাষ্ট্রমন্ত্রী আলফা বেরির সাথে এর আগে হেলিকপ্টারে করে ওই শরণার্থী শিবিরে যান তিনি। বিশ্ব শরণার্থী দিবস উপলক্ষে অনুষ্ঠানের অংশ হিসেবে এই সফর করেন তিনি।

মালিতে চলমান সংঘাত ও সহিংসতা এড়াতে এই শরণার্থীরা নিজেদের ঘর ছেড়ে সীমান্ত পেরিয়ে বুরকিনা ফাসোতে আশ্রয় নিয়েছেন।

শরণার্থী শিবির পরিদর্শন শেষে এক সংবাদ সম্মেলনে অ্যাঞ্জেলিনা জোলি বলেন, ‘গত ২০ বছর আমি এই দিবসটি বিশ্বের বিভিন্ন দেশের শরণার্থীদের সাথে কাটিয়ে আসছি।’

তিনি বলেন, ‘আজকের মতো আমি বৈশ্বিক শরণার্থী পরিস্থিতির বিষয়ে উদ্বিগ্ন হইনি। বাস্তবতা হচ্ছে, আমরা যা করতে পারি তার অর্ধেকও করছি না এবং শরণার্থীদের নিজ আবাসে ফিরিয়ে নেয়ার উপযোগী সমাধান খোঁজ করছি না। অথবা বুরকিনা ফাসোর মতো শরণার্থীদের আশ্রয় দেয়া দেশগুলোকে সাহায্য করছি না, যারা বছরের পর বছর মৌলিক চাহিদা ও সুরক্ষার জন্য প্রয়োজনীয় মানবিক সাহায্যের ক্ষু্দ্র এক অংশ দিয়ে সংগ্রাম করছে।’

সূত্র : দ্য নিউজ ইন্টারন্যাশনাল