কাশ্মিরের মুসলিমদের পক্ষে কথা বলবে তালেবান

কাশ্মিরের মুসলিমদের পক্ষে কথা বলবে তালেবান

আফগানিস্তানের তালেবান কর্তৃপক্ষ বলেছে যে তারা কাশ্মিরের মুসলিমদের পক্ষে কথা বলবেন। কিন্তু তারা এ কথাও বলেছেন যে তারা কাশ্মিরের মুসলিমদের জন্য অস্ত্র হাতে তুলে প্রতিবাদ করবেন না, কিন্তু মৌখিক প্রতিবাদ করার অধিকার রাখেন তারা। এছাড়া পৃথিবীর অন্যান্য দেশে মুসলিমদের অধিকার হরণ করা হলে তারও প্রতিবাদ করবেন তারা। শুক্রবার এনডিটিভির প্রতিবেদনে এ সংবাদ প্রকাশ করা হয়েছে।

বিবিসি উর্দুকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তালেবান কর্তৃপক্ষের মুখপাত্র সুহেল শাহিন বলেন, মুসলমান হিসেবে আমাদের অধিকার আছে যে কাশ্মির, ভারত বা অন্য কোনো দেশের মুসলিমদের জন্য আওয়াজ তোলার। মুসলিমরা হলো আমাদের নিজেদের ভাই। আর তাদের জন্য সবসময় আমরা সরব থাকব। মুসলিমরাও মানুষ, ওরাও নাগরিক আর তারা যে কোনো দেশের আইনে মৌলিক অধিকার পাওয়ার যোগ্য।

এদিকে, কাতারের দোহায় যুক্তরাষ্ট্রের সাথে শান্তিচুক্তির শর্তগুলো মনে করিয়ে দিয়ে সুহেল শাহিন বলেন, অন্য কোনো দেশে সশস্ত্র হামলার ইচ্ছা নেই তালেবানের।

এর আগে ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, কাতারে নিযুক্ত ভারতের রাষ্ট্রদূত দিপক মিত্তাল দেখা করেছেন তালেবানের রাজনৈতিক কার্যালয়ের প্রধান শের মোহাম্মদ আব্বাস স্টানিকজাইয়ের সাথে। ওই বৈঠকে শের মোহাম্মদ আব্বাস স্টানিকজাইকে ভারতের রাষ্ট্রদূত বলেন, আফগানিস্তানের মাটি যেন ভারতবিরোধী কার্যকলাপের জন্য ব্যবহার করা না হয়।

সূত্র : এনডিটিভি ও ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস