গণ-আন্দোলনের মাধ্যমে সরকারকে বিদায় করা হবে :মির্জা ফখরুল

গণ-আন্দোলনের মাধ্যমে সরকারকে বিদায় করা হবে :মির্জা ফখরুল

মঙ্গলবার (৮ মার্চ) দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে যুবদলের বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি জানান, বাজার অব্যবস্থাপনার দায়ে বাণিজ্যমন্ত্রীর সঙ্গে বর্তমান সরকারকেও পদত্যাগ করা উচিত।

তিনি বলেন, সরকারের অন্যায়-অবিচারের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে। এদের দিন শেষ হয়েছে। মানুষকে বাঁচাতে হলে প্রয়োজনে গণ-আন্দোলনের মাধ্যমে সরকারকে বিদায় করা হবে।

সরকারকে উদ্দেশ্য করে ফখরুল বলেন, নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের হাতে ক্ষমতা হস্তান্তর করে জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠা করুন।ভালোই ভালোই পদত্যাগ করুন।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী বলেছেন ইউক্রেন-রাশিয়ার যুদ্ধের ফলে জিনিসপত্রের দাম বেড়েছে সব জায়গায়। আমি তাকে জিজ্ঞাসা করতে চাই, রাশিয়া এবং ইউক্রেনের যুদ্ধ কবে থেকে শুরু হলো? আর কবে থেকে দেশের মানুষ চিৎকার করছে যে তেলের দাম কমাও, চালের দাম, ডালের দাম কমাও, আমরা আর পারছি না।

তিনি বলেন, এই সরকার বাজারের ওপর কোনো নিয়ন্ত্রণ করতে পারছে না। এর প্রধান কারণ হচ্ছে সিন্ডিকেট ও আওয়ামী লীগ ব্যবসায়ী। ৭২ থেকে ৭৫ সালে যা হয়েছিল, আবারও তারা তাই করছে।

মির্জা ফখরুল বলেন, রাজনৈতিক শক্তিগুলোকে ঐক্যবদ্ধ করে সরকারকে পরাজিত করার মাধ্যমে জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে। এ জন্য সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।

যুবদলের কেন্দ্রীয় সভাপতি সাইফুল আলম নীরবের সভাপতিত্বে সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকুর সঞ্চালনায় বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির আহ্বায়ক আমান উল্লাহ আমান, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির আহ্বায়ক আবদুস সালামসহ যুবদলের নেতারা।