গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে রাশিয়ার দুই কর্মকর্তাকে বহিষ্কার ইতালির

সংগ্রহীত

গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে রাশিয়ার দুই কর্মকর্তাকে বহিষ্কার ইতালির

গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে রাশিয়ার দুই কর্মকর্তাকে বহিষ্কারের আদেশ দিয়েছে ইতালি। ইতালির পররাষ্ট্রমন্ত্রী লুইগি ডি মায়িও নিজের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজে এ ঘোষণা দিয়েছেন।

গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগ মঙ্গলবার ইতালির নৌবাহিনীর একজন ক্যাপ্টেন ও রোমের রুশ দূতাবাসে নিযুক্ত রাশিয়ার একজন সেনা কর্মকর্তাকে আটক করার পর এ বহিষ্কারাদেশ দেয়া হলো।

ইতালির নৌবাহিনীর ওই কর্মকর্তা ‘অর্থের বিনিময়ে’ দেশটির অতি গোপন নথিপত্র ওই রুশ সামরিক কর্মকর্তার কাছে তুলে দেয়ার সময় হাতেনাতে ধরা পড়েন। ইতালির আধাসামরিক পুলিশ বাহিনী ‘কারাবিনিয়ারি’ এক প্রেস রিলিজে এ তথ্য জানিয়েছে।

গতকাল (বুধবার) রোমে নিযুক্ত রুশ রাষ্ট্রদুত সের্গেই র‍্যাজোভকে ইতালির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তলব করা হয়

পরে অবশ্য কূটনৈতিক দায়মুক্তি থাকায় রুশ কর্মকর্তাকে ছেড়ে দেয়া হয়। ইতালির আধাসামরিক পুলিশ জানিয়েছে, দীর্ঘদিন ধরে নৌবাহিনীর ওই ক্যাপ্টেনের গতিবিধির ওপর নজর রাখার পর নথি হস্তান্তরের সময় তাকে আটক করা হয়।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডি মায়িও বহিষ্কারাদেশ পাওয়া দুই রুশ কর্মকর্তার নাম প্রকাশ করেননি এবং দ্বিতীয় কোন ব্যক্তিকে ইতালি ছাড়ার আদেশ দেয়া হয়েছে তাও তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি।

গুপ্তচরবৃত্তির এ ঘটনার প্রতিবাদে গতকাল (বুধবার) রোমে নিযুক্ত রুশ রাষ্ট্রদূত সের্গেই র‍্যাজোভকে ইতালির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তলব করা হয়। ইতালির পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, তার দেশের পক্ষ থেকে রাশিয়ার রাষ্ট্রদূতকে এ ব্যাপারে কঠোর প্রতিবাদ জানানো হয়েছে। তিনি ইতালির গোয়েন্দা সংস্থাগুলোকে দেশের নিরাপত্তা রক্ষায় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ থাকার জন্য ধন্যবাদ জানান।