চোট নয়, রোনালদোকে বাদই দিয়েছিল ইউনাইটেড

এ যুক্তি অনেকেরই বিশ্বাস হয়নি। ম্যাচের আগেই রোনালদোর চোট নিয়ে সন্দেহের কথা জানিয়েছেন সাবেক অধিনায়ক রয় কিন। স্কাই স্পোর্টসে রোনালদোর অনুপস্থিতির পেছনে অন্য কোনো কারণ আছে কি না, এমন প্রশ্নে কিন বলেছেন, ‘তাই তো মনে হচ্ছে। যখন ম্যানেজার হিপ ফ্লেক্সর নিয়ে কথা বলা শুরু করে, আমার ভালো লাগে না। আমি এটা বুঝিই না।

রোনালদোর মতো খেলোয়াড়ের ক্ষেত্রে চোটের অজুহাতই মানতে রাজি নন কিন, ‘আমরা সব সময় বলি, রোনালদো একটা যন্ত্র। সে খুব কমই চোটে পড়ে। আর এখন দুই দিন পরপরই এটা হচ্ছে, আর বলা হয়, তার হিপ ফ্লেক্সরের সমস্যা। আমার কাছে এটা বিশ্বাসযোগ্য নয়।

এ আলোচনার মধ্যেই ক্ষোভের আগুন বাড়িয়েছেন রোনালদোর বোন কাতিয়া আভেইরো। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে রোনালদোর হয়ে প্রায়ই লড়েন তাঁর বোন। যেকোনো বিতর্ক বা ব্যর্থতার পর ইনস্টাগ্রামে ঢাল হয়ে আসেন বড় বড় পোস্ট নিয়ে। এবার অবশ্য নতুন কোনো পোস্ট দেননি আভেইরো। তবে অন্যভাবে রোনালদো বিতর্কের আগুনে ঘি ঢেলেছেন।

ইনস্টাগ্রামে ম্যাচের আগে রোনালদোর এক ভক্ত পোস্ট করেছিলেন, ‘ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো চোটে পড়েননি এবং অসুস্থ নন। তিনি শতভাগ সুস্থ। তাদের সবাইকে শুভ সকাল, যারা আমার মতো দুঃখিত ও রাগান্বিত। কারণ রাংনিক ম্যানচেস্টার সিটির সঙ্গে ডার্বি ম্যাচে সিআরসেভেনকে বাদ দিয়ে আমাদের রোববার মাটি করেছেন। রোনালদোকে তিনি নেননি কৌশলগত কারণে, যাতে ম্যাচে রক্ষণাত্মক খেলতে পারেন।

এ পোস্ট পছন্দ করে কাতিয়া আভেইরো একপ্রকার জানিয়ে দিয়েছেন, সমর্থকদের সন্দেহটাই ঠিক। এর আগেও নানা বিতর্কে রোনালদোর মত প্রকাশ করতে রোনালদোর বোনের এই অ্যাকাউন্ট ব্যবহৃত হয়েছে।