নওগাঁ পৌরসভা ও নিয়ামতপুরে ৭ দিনের লকডাউনের আজ প্রথম দিন

সংগ্রহীত

নওগাঁ পৌরসভা ও নিয়ামতপুরে ৭ দিনের লকডাউনের আজ প্রথম দিন

করোনা সংক্রমণের হার বেড়ে যাওয়ায় ১৫ দফা নির্দেশনা দিয়ে নওগাঁ পৌরসভা ও নিয়ামতপুর উপজেলায় ৭দিনের জন্য বিশেষ লকডাউনের আজ প্রথম দিন।

জেলা প্রশাসক হারুন-অর-রশীদ জানান, এই লকডাউন বাস্তবায়নে পুলিশ ও জেলা প্রশাসন মাঠে রয়েছে। সকাল বেলা শহরের বিভিন্ন পয়েন্টের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ রাস্তায় পুলিশ চেকপোস্ট বসিয়েছে। এসব চেকপোস্টে গাড়ি থামিয়ে রাস্তায় দুই একজন বের হওয়া যাত্রীদের পরিচয় এবং কারণ জানতে চায় পুলিশ। যেসব পেশার মানুষ জরুরি সেবার সঙ্গে
সম্পৃক্ত তাদের চেকপোস্ট অতিক্রম করার অনুমতি দিচ্ছে। সকাল থেকে লকডাউনের জন্য সকল দোকানপাট ও যানচলাচল বন্ধ রয়েছে। তবে জরুরি পণ্যবাহী গাড়ি ছাড়া রাজশাহী, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, বগুড়া ও জয়পুরহাট থেকে কোন যানবাহন নওগাঁয় প্রবেশ করছে না।

আবার নওগাঁ থেকেও কোন যানবাহন জেলার বাইরে যাচ্ছে না। রোগী ও অন্য জরুরি সেবাদানকারীর ক্ষেত্রে এটি প্রযোজ্য হবে না। এছাড়াও সাপাহার, পোরশা ও মান্দা উপজেলা, রাজশাহী-চাঁপাইনবাবগঞ্জ ও আন্তর্জাতিক সীমান্ত সংলগ্ন সকল হাট বাজার বন্ধ থাকবে আজ থেকে। তবে সকাল ৭টা থেকে বেলা আড়াইটা পর্যন্ত স্বাস্থ্যবিধি মেনে নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি বেচাকেনা করতে পারবে। এসব বিধি নিষেধ কেউ ভঙ্গ করলে ভঙ্গকারীদের কঠিন শাস্তি আওতায় আনা হবে।

নওগাঁ সিভিল সার্জন আবু হানিফ জানান, গতকাল বুধবার পর্যন্ত জেলার ১১টি উপজেলা থেকে মোট ১৫৯৬১জনের নমুনা পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে যার মধ্যে ২ হাজার ৩১৬জনের করোনা পজেটিভ ফলাফল এসেছে। শতকরা হিসেবে নওগাঁয় প্রতিদিন ২০ শতাংশ মানুষ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হচ্ছে। আর করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে জেলায় মোট ৪৩জন মারা গেছে।