বিআরটি প্রকল্পের কাজ শেষ হওয়া নিয়ে অনিশ্চয়তা কাটছে না

সংগ্রহীত

বিআরটি প্রকল্পের কাজ শেষ হওয়া নিয়ে অনিশ্চয়তা কাটছে না

বাস র‌্যাপিড ট্র্যানজিট-বিআরটি প্রকল্পের কারনে এখনও অসহনীয় দুর্ভোগ পোহাচ্ছেন ঢাকা গাজীপুর রুটের যাত্রীরা। যদিও-উন্নতমানের সড়ক নির্মাণে পথের বিভিন্ন জায়গায় চলছে কাজ। প্রকল্পের ব্যবস্থাপনা পরিচালক বলছেন-আগামী জুন মাসের মধ্যে এই মহাসড়ক নির্মাণকাজ শেষ হবে। 

ভাঙা-চোরা পথে নিত্যদিন চলছেন ঢাকা-গাজীপুরের যাত্রীরা। যাতে অসহনীয় দুর্ভোগে নাভিশ্বাস উঠছে যাত্রী-চালক-হেলপার সবার।

ঢাকা থেকে গাজীপুর ২০ কিলোমিটার জুড়ে বাসের জন্য আলাদা লেন তৈরির বাস র‌্যাপিড ট্র্যানজিট বিআরটি প্রকল্পের কাজ শুরু হয় ২০১৬ সালে। এরপর থেকেই এমন দুর্ভোগ যেন স্বাভাবিক।

কয়েক দফা সময় বাড়িয়ে এখনও সন্তোষজনক নয় প্রকল্পের অগ্রগতি। এরপরও হয়তো শেষ হতে যাচ্ছে দুর্ভোগের দিন। অন্তত নিচের সড়ক ভাল করে দিতে চলছে নির্মাণকাজ। যেখানে কয়েক স্তরে পিচ ঢালাইয়ের মাধ্যমে তৈরি হচ্ছে উন্নত সড়ক।

বাসের জন্য আলাদা লেন তৈরির এই প্রকল্পে তিন ভাগে ভাগ হচ্ছে ঢাকা-গাজীপুর মহাসড়ক। মাঝের লেন দিয়ে চলবে শুধুমাত্র বিআরটি বাস। আর দুই পাশ প্রস্তুত হচ্ছে অন্যান্য যানবাহনের জন্য। কর্তৃপক্ষ বলছে-আগামী জুনের মধ্যে পুরো সড়ক হবে মানসম্মত।

বিআরটি প্রকল্পের অগ্রগতি মাত্র ৫০ ভাগ। আর এজন্য বিআরটি প্রকল্প সময়মত শেষ হোক না হোক নিচের রাস্তা জুনের মধ্যে শেষ করাই এখন লক্ষ্য প্রকল্পের কর্তাব্যাক্তিদের। যা বাস্তবায়িত হলে দীর্ঘদিন পর স্বস্তি ফিরবে এই পথে।