সারা বিশ্বে করোনায়: গত ২৪ ঘণ্টায় আরও বেড়েছে মৃত্যু ও শনাক্ত

সারা বিশ্বে করোনায়: গত ২৪ ঘণ্টায় আরও বেড়েছে মৃত্যু ও শনাক্ত

করোনাভাইরাসে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ১০ হাজার ৪৪৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ সময় রোগী শনাক্ত হয়েছে ১৭ লাখ ৭৪ হাজার ৩০৫ জন। এর আগে গতকাল (বুধবার) ৮ হাজার ৫৫৭ জনের মৃত্যু এবং ১৬ লাখ ১৭ হাজার ৪৪৮ জন আক্রান্ত হয়েছিল।

বৃহস্পতিবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) সকালে ওয়ার্ল্ডোমিটারস থেকে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।

ওয়ার্ল্ডোমিটারসের সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪২ কোটি ৯৭ লাখ ৮১ হাজার ৯৯৮ জন। এরমধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৫৯ লাখ ৩৫ হাজার ৫৮১ জনের।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় জার্মানিতে আক্রান্ত হয়েছেন ২ লাখ ১৯ হাজার ৮৫৯ জন এবং মারা গেছেন ২৫৩ জন। যুক্তরাষ্ট্রে আক্রান্ত হয়েছেন ৭১ হাজার ৩৭৭ জন এবং মারা গেছেন ২ হাজার ৪২০ জন। রাশিয়ায় মারা গেছেন ৭৮৫ জন এবং সংক্রমিত হয়েছেন ১ লাখ ৩৭ হাজার ৬৪২ জন। স্পেনে আক্রান্ত হয়েছেন ৩৩ হাজার ৯১১ জন এবং মারা গেছেন ৩০১ জন। ব্রাজিলে মারা গেছেন ৯৫৬ জন এবং সংক্রমিত হয়েছেন ১ লাখ ৩৩ হাজার ৬২৬ জন। ভারতে মারা গেছেন ৩০২ জন এবং সংক্রমিত হয়েছেন ১৩ হাজার ৪৭৬ জন। যুক্তরাজ্যে আক্রান্ত হয়েছেন ৩৯ হাজার ৬৫৬ জন এবং মারা গেছেন ১৬৪ জন। তুরস্কে আক্রান্ত হয়েছেন ৮৬ হাজার ৬০০ জন এবং মারা গেছেন ২৬৮ জন। ইতালিতে আক্রান্ত হয়েছেন ৪৯ হাজার ৪০ জন এবং মারা গেছেন ২৫২ জন। ফ্রান্সে আক্রান্ত হয়েছেন ৬৬ হাজার ৮৩৩ জন এবং মারা গেছেন ২১৩ জন।

এ ছাড়া করোনায় আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় পোল্যান্ডে ৩৬০ জন, আর্জেন্টিনায় ১৫৭ জন, গ্রিসে ৫৩ জন, ইরানে ২২৭ জন, জাপানে ২৭২ জন, রোমানিয়ায় ১১০ জন, কানাডায় ১৩৭ জন, ফিলিপাইনে ২০১ জন, দক্ষিণ আফ্রিকায় ১১০ জন, ইন্দোনেশিয়ায় ২২৭ জন, মেক্সিকোতে ৭০৬ জন এবং হাঙ্গেরিতে ১৩২ জন মারা গেছেন।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। এরপর ২০২০ সালের ১১ মার্চ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) করোনাকে ‘বৈশ্বিক মহামারি’ হিসেবে ঘোষণা করে। এর আগে একই বছরের ২০ জানুয়ারি বিশ্বজুড়ে জরুরি পরিস্থিতি ঘোষণা করে সংস্থাটি।