সিলেটে বন্যার পানি কমলেও বিশুদ্ধ পানির সংকট

সিলেটে বন্যার পানি কমলেও বিশুদ্ধ পানির সংকট

সিলেটে কমতে শুরু করেছে বন্যার পানি। সুরমা, কুশিয়ারা, ধলাই, পিয়াইন নদ-নদীর পানি আগের থেকে অনেকটাই কমে গেছে। তবে পানি কমলেও জনসাধারণের দুর্ভোগ বেড়েই চলছে। নগরীর বেশিরভাগ বাসা বাড়ি থেকে এখনো পানি নামেনি। অন্যদিকে পানি নামার সঙ্গে সঙ্গে দুর্ভোগ বাড়ছে বানভাসিদের। নানা রোগ বালাই দেখা দিচ্ছে। সবচেয়ে বেশি সমস্যায় পড়তে হচ্ছে বিশুদ্ধ পানি নিয়ে। বিভিন্ন উপজেলাগুলোতে ত্রাণের জন্য চলছে হাহাকার।

রোববার (২২ মে) সকাল থেকে সিলেটে রোধের দেখা মিলেছে। বৃষ্টির কোন আভাস নেই।

পাহাড়ি ঢল ও অতিবৃষ্টির কারণে চলতি মাসের ১১ মে থেকে সিলেটের বিভিন্ন উপজেলার নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়। ধীরে ধীরে বন্যা বৃদ্ধি পেয়ে সিলেট মহানগরেরও নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়। এক এক করে মহানগরীর প্রায় ২০ টি ওয়ার্ড বন্যার পানিতে ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এ সময় অনেক মানুষই বিভিন্ন অশ্রয় কেন্দ্রে গিয়ে অবস্থান করেন।

সরেজমিনে এসব এলাকা ঘুরে দেখা যায়, যেসব বাসা বাড়ি বা দোকানপাটে পানি প্রবেশ করেছিল, তা ধোয়ামোছা করছেন ভুক্তভোগীরা। তবে এসব বাড়ি-ঘর স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরিয়ে আনতে অনেক বেগ পোহাতে হবে বাসিন্দাদের।

নগরীর মাছিমপুর এলাকার বাসিন্দা রিনা সিংহ জানান, ঘর থেকে পানি নেমে গেছে। তারপরও ঘরে প্রচুর পানি আটকে আছে। এসব পানি শনিবার সকাল থেকে সেচে বের করেছেন। বারান্দায় এখনো পানি রয়েছে।