স্ত্রীসহ মির্জা আব্বাস করোনায় আক্রান্ত

PHILADELPHIA, PENNSYLVANIA - NOVEMBER 04: National Guard soldiers patrol the streets of Philadelphia the morning after Americans voted in the presidential election on November 04, 2020 in Philadelphia, Pennsylvania. With no winner declared in the presidential election last night, all eyes are on the outcome in a few remaining swing states to determine whether Donald Trump will get another four years or if Joe Biden will become the next president of the United States. The counting of ballots in Pennsylvania continued through the night with no winner yet announced. Spencer Platt/Getty Images/AFP == FOR NEWSPAPERS, INTERNET, TELCOS & TELEVISION USE ONLY ==

স্ত্রীসহ মির্জা আব্বাস করোনায় আক্রান্ত

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস এবং তার স্ত্রী জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা আব্বাস করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। আব্বাসের ব্যক্তিগত সহকারী আসিফ সোহান বুধবার বলেন, ‘তারা (আব্বাস এবং আফরোজা) কিছুদিন অসুস্থ থাকায় করোনার পরীক্ষা করেছেন। আমরা বুধবার তাদের পরীক্ষার ফলাফল পেয়েছি এবং তারা উভয়ইয়ের করোনা পজেটিভ এসেছে।

তিনি জানান, শাহজাহানপুরের বাসায় চিকিৎসকদের পরামর্শ অনুযায়ী এই দম্পতি চিকিৎসা নিচ্ছেন। আসিফ বলেন, আব্বাস ও আফরোজা সুস্থ আছেন। তাদের বড় ধরনের কোনো জটিলতা নেই।

এদিকে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু, ভাইস চেয়ারম্যান এম শাহজাহান ও তার স্ত্রী, সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন, শামা ওবায়েদ, কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য জহির উদ্দিন স্বপন, স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক মো. আবদুল কাদের ভূঁইয়া জুয়েলসহ বিএনপি ও এর সহযোগী সংগঠনের একাধিক নেতা সম্প্রতি কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হয়েছেন। তারা প্রত্যেকে নিজ নিজ বাসায় কোয়ারেন্টাইনে থেকে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

এদিকে, গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ২১ জনের মৃত্যুর মধ্য দিয়ে দেশে মহামারী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতে সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬ হাজার ৪ জনে।

এছাড়া, নতুন করে ১ হাজার ৫১৭ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। যার ফলে মোট আক্রান্তের সংখ্যা পৌঁছেছে ৪ লাখ ১৪ হাজার ১৬৪ জনে। বুধবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো করোনা সংক্রান্ত নিয়মিত স্বাস্থ্য সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। গত ৮ মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্তের পর ১৮ মার্চ প্রথম একজনের মৃত্যুর কথা জানায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

সূত্র : ইউএনবি