হরতালের প্রতিবাদে আ. লীগের মিছিল, সতর্ক অবস্থানে পুলিশ

সংগ্রহীত

হরতালের প্রতিবাদে আ. লীগের মিছিল, সতর্ক অবস্থানে পুলিশ

হেফাজতের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতালের খুব একটা প্রভাব পড়েনি স্বাভাবিক জীবনযাপনে। রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে স্বাভাবিক ছিল যান চলাচল। কয়েকটি স্থানে বিক্ষিপ্ত মিছিল করেছে হেফাজতে ইসলাম।

অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতে সারাদেশেই পুলিশের সতর্ক অবস্থান লক্ষ করা গেছে। এদিকে হরতালের প্রতিবাদে বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভ মিছিল করেছে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

রোববার (২৮ মার্চ) হেফাজতে ইসলামের ডাকা সকাল সন্ধ্যা হরতাল চলাকালে রাস্তায় স্বাভাবিকভাবেই চলাচল করে গণপরিবহন। রাজধানীর পল্টন, মতিঝিল, গুলিস্তানসহ গুরুত্বপূর্ণ সড়কগুলোর চিত্রও একই। পাড়া-মহল্লায়ও জনজীবনও স্বাভাবিক।

রাজধানীর উত্তরায় সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবসে সকালে যান চলাচল কিছুটা কম থাকলেও বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে তা স্বাভাবিক হতে থাকে।

যাত্রাবাড়ী এলাকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক থাকলেও সাইনবোর্ড এলাকায় ঢাকা-চট্টগ্রাম সড়ক অবরোধের কারণে যান চলাচল সাময়িক বন্ধ ছিল। চালক ও যাত্রীরা এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন। পরে, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সহায়তায় পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।

হরতাল সফল করতে বায়তুল মোকাররমের উত্তর গেট থেকে কয়েক দফায় বিক্ষিপ্তভাবে মিছিল বের করে হেফাজতে ইসলামের নেতাকর্মীরা। তাদের মিছিল সীমাবদ্ধ ছিল পল্টন থেকে দৈনিক বাংলা মোড় পর্যন্ত।

হেফাজতে ইসলামের ডাকা এই হরতালের প্রতিবাদে রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে অবস্থান কর্মসূচি ও সমাবেশ করে ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ ও ছাত্রলীগসহ বিভিন্ন সহযোগী ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

এদিকে হরতালকে কেন্দ্র করে যে কোনো ধরনের অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতি মোকাবিলায় সতর্ক অবস্থানে পুলিশ।

পুলিশের এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেন, ‘আইনশৃঙ্খনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক অবস্থায় আছে, কোনো অবনতি হয়নি। যান চলাচলে কোনো অবনতি হয়নি। মানুষের জান-মাল রক্ষা করা আমাদের দায়িত্ব।’

হরতালকে কেন্দ্র করে রাজধানীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ সড়কে মোতায়েন রয়েছে অতিরিক্ত পুলিশসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা।